ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুরে তালাকপ্রাপ্ত স্বামীর ধারালো অস্ত্রের কোপে স্ত্রীসহ আহত তিন জন

অন্যদৃষ্টি অনলাইন
সোমবার, ২৩ জুলাই, ২০১৮, ৫:৫৭ অপরাহ্ন

এন আই শান্ত,কোটচাঁদপুর, ঝিনাইদহ।।
কোটচাঁদপুর তালাকপ্রাপ্ত স্বামীর ধারালো অস্ত্রের কোপে স্ত্রী সহ তিন জন আহত।
কোটচাঁদপুর উপজেলার কাগমারী গ্রামের মাঠপাড়ায় রবিবার সন্ধ্যা ৮ টার দিকে তালাকপ্রাপ্ত স্বামীর ধারালো অস্ত্রের কোপে স্ত্রীসহ তিন জন আহত হয়েছে। আহতরা হলেন স্ত্রী ময়ূরী(২৩), পিতা বাহার আলী(৫৫) ও বড় বোন শাপলা(২৮)।
স্থানীয় সূত্রে জানাযায়, গত এক দেড় বছর আগে কাগমারী গ্রামের মাঠপাড়ার বাবর আলীর ছেলে সবুজের সাথে একই পাড়ার বাহার আলীর ছোট মেয়ে ময়ূরীর সাথে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে এবং তারা বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন।কিন্তু পড়ে জানতে পারেন সবুজ নেশাখোর এবং নেশা করে এসে তার স্ত্রীকে মারধর করত। এর পরিপেক্ষিতে গত এক সপ্তাহ আগে গ্রাম্য সালিশের মাধ্যমে আপোষ ভাবে তারাতালাক প্রাপ্ত হন।
আহত শাপলা জানান, রবিবার সন্ধ্যায় আমি ও আমার বোন ময়ূরী এক ঘরে ছিলাম অন্য ঘরে আমার পিতা বাহার আলী ছিলেন হঠাৎ করে আমরা চিৎকারের আওয়াজ শুনে বাইরে এসে দেখি সবুজ একটি ধারালো অস্ত্র দিয়ে আব্বাকে কোপ দিচ্ছে। আমরা ঠেকাতে গেলে আমাকে ও আমার বোনকেও এলোপাথাড়ি কোপ দেয় এতে আমার বাম হাতে, ছোট বোনের দুই কাধে, মাথায় ও দুই হাতের আঙ্গুলে কোপ দেয়। ছোট বোনের দুই হাতে মধ্যে ডান হাতে তিনটি আঙ্গুল এবং বাম হাতের দুইটি আঙ্গুল কেটে পড়ে গেছে। আমাদের চিৎকার চেঁচামেচি শুনে পাশের লোকজন এসে সবুজকে ধরে ফেলে এবং পরে পুলিশে সর্পোদ করেন।
স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে কোটচাঁদপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কম্পলেক্সে নিয়ে আসেন।
কোটচাঁদপুর স্বাস্থ্য কম্পলেক্সের কর্তব্যরত ডাক্তার নাজমুস সাকিব জানান, আহতদের প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ভর্তি করা হয়েছে এবং এর মধ্যে ময়ূরীর অবস্থা গ্রুরতর হওয়ায় তাকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে রের্ফাড করা হয়েছে।
Facebook Comments
Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি শেয়ার করুন


আরো সংবাদ
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com