ব্রেকিং নিউজ
সংবাদকর্মী আবশ্যক। আগ্রহীগণ সিভি, ছবি এবং জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপিসহ আবেদন করুন - onnodristynews@gmail.com/ news@onnodristy.com. মুঠোফোন : ০১৯১১২২০৪৪০/ ০১৭১০২২০৪৪০।

পণের চাপ, স্বামীর অন্য সম্পর্ক, মানিকতলায় উদ্ধার বধূর দেহ

স্বামীর সঙ্গে ফুলকুমারী মারিক- সংগৃহীত

অন্যদৃষ্টি অনলাইন।।

বিয়ের সময় এক লাখ টাকা পণ চেয়েছিলেন পাত্র। পরে অবশ্য পাত্রী পক্ষের সঙ্গে বোঝাপড়ায় পণের টাকা না নিয়েই বিয়েতে রাজি হয়ে যান মানিকতলার দীপক মারিক। বিয়ের কিছু দিন পর থেকেই শুরু হয় স্ত্রীর উপর নির্যাতন। এমনকি, এক আত্মীয়ের সঙ্গে বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কেও জড়িয়ে পড়েন দীপক।

এক দিকে পণের টাকার জন্য গঞ্জনা, অত্যাচার, অন্য দিকে আত্মীয়ের সঙ্গে বিবাহবহির্ভূত সম্পর্ক মেনে নেওয়ার জন্য চাপ। তিন বছরের দাম্পত্য জীবনে মানসিক ভাবে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছিলেন ফুলকুমারী। শুক্রবার দীপকের বাড়ি থেকেই তাঁর দেহ উদ্ধার করল পুলিশ। ফুলকুমারীর পরিবারের অভিযোগ, পণের টাকা না পেয়েই তাঁকে বিষ খাইয়ে ‘খুন’ করা হয়েছে।

অভিযোগ, বিয়ের সময় দীপকের তরফে এক লাখ টাকা দাবি করা হয়েছিল। তখন দিতে পারেনি ফুলকুমারীর পরিবার। পরে অবশ্য তারা মাঝে মাঝেই সোনার গয়না, টাকাপয়সা দিতেন। কিন্তু এর পরেও দিনের পর দিন অত্যাচার চলেছে তার উপর। প্রতিবাদ করলে কপালে জুটেছে লা়ঞ্ছনা। এমনকি মারধরও বাদ যায়নি। পরিবারের এক সদস্যের দাবি, সম্প্রতি দীপক এক আত্মীয়ের সঙ্গে বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন।

বিষয়টি জানতে পেরেছিলেন ফুলকুমারী। কাউকে না বলার জন্য দীপক তাঁকে চাপ দিচ্ছিলেন বলেও ফুলকুমারীর পরিবারের অভিযোগ। যদিও তিনি কয়েক জনকে বিষয়টি জানিয়েও দিয়েছিলেন। এর পরই অত্যাচারের মাত্রা বাড়তে থাকে। কয়েক দিন আগে ওই আত্মীয়ের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ অবস্থায় স্বামীকে দেখার পর, নিজেকে ঠিক রাখতে পারেননি ফুলকুমারী। প্রতিবাদ করেন তিনি। তবে তার যে এমন পরিণতি হবে, ভাবতেও পারেনি মৃতের পরিবার।

পুলিশ জানিয়েছে, সংজ্ঞাহীন অবস্থায় শ্বশুরবাড়ি থেকে ওই গৃহবধূর দেহ উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসকেরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

স্থানীয় সূত্রে খবর, তিন বছর আগে দীপকের সঙ্গে ফুলকুমারীর বিয়ে হয়। তাঁদের দেড় বছরের একটি ছেলেও রয়েছে। দীপক গেঞ্জি কারখানায় কাজ করেন। পরিবারের আর্থিক অবস্থা খুব একটা ভাল নয়।

যদিও দীপকের বিরুদ্ধে ওঠা সব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন তাঁর পরিবার। কী ভাবে ওই গৃহবধূর মৃত্যু হল, তা স্পষ্ট হবে ময়নাতদন্তের রিপোর্টর পরেই। মৃতার পরিবারের তরফে অভিযোগ পেয়ে, দীপককে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ। ঠিক কী ঘটনা ঘটেছে, তা জানার চেষ্টা চলছে। আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়া হয়েছিল কিনা, তা-ও খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

Facebook Comments


শিরোনাম
তামিম ইকবালের আর মাত্র ৩৬টি রান বাকি….. আইপিএলে মুশফিক ও মাহমুদউল্লাহ! ‘স্লগ ওভারে বোলিংয়ে উন্নতি দরকার’ অস্ত্রোপচার শেষে ক্রিকেটার চামেলী দেশে ফিরেছেন ‘দুস্থ প্রতিবন্ধির পাশে’ রাঙ্গুনিয়া উপজেলা ছাত্রলীগ দুস্থ প্রতিবন্ধির পাশে রাঙ্গুনিয়া উপজেলা ছাত্রলীগ ইবির শিক্ষক সমিতির নির্বাচনে শাপলা ফোরামের জয়লাভ ২৪ ডিসেম্বর মাঠে নামছে সেনাবাহিনী, থাকবে ভোটের পরেও দু’দিন ‘এই নির্বাচন আদৌ কোনও নির্বাচন হবে কি না সেই প্রশ্ন দেখা দিয়েছে’ যশোরের বাঁকড়ায় নৌকা প্রতীকীর ‘বিশাল জনসভা’ ‘যতই বাধা-বিপত্তি আসুক না কেন এদেশের মানুষের জন্য কাজ করে যাব।’  যশোরের বাঁকড়ায় নৌকা প্রতিকের জনসভা ঝিনাইদহে ডিজিটাল বাংলাদেশ দিবস পালিত চবি’র ছাত্রসেনার উদ্যোগে পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (দ.) শীর্ষক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত ঝিনাইদহ -৪ আসনে বিএনপি’র প্রার্থী জননেতা ফিরোজের নির্বাচনী প্রচারনা ও লিফলেট বিতরণ ঝিনাইদহে ডিজিটাল বাংলাদেশ দিবস পালিত প্রতিহিংসা রাজনীতি ছেড়ে সোনার বাংলা গড়তে আবার নৌকা মার্কায় ভোট দিন : মেয়র খালেক ঝিনাইদহে মারধর গনগ্রেফতার বাড়িঘর দোকানপাট ভাংচুর, লিখিত অভিযোগ রাঙ্গুনিয়া পোমরা ইউপি আওয়ামীলীগের পথসভা ও নির্বাচনী ক্যাম্প উদ্বোধন যশোরের ঝিকরগাছায় জামায়াত-বিএনপি নেতা গ্রেফতার নওগাঁয় স্কুলপড়ুয়া মোর্শেদা নিজের ‍বুদ্ধিমত্তায় বাল্যবিয়ে ঠেকালো আজ (১২ ডিসেম্বর) ‘ডিজিটাল বাংলাদেশ’ দিবস পোরশায় বিএনপির কর্মী সমাবেশ অনুষ্ঠিত নিয়ামতপুরে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন বিষয়ে সেমিনার নিয়ামতপুরে ডিজিটাল বাংলাদেশ দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা ও পুরস্কার বিতরণ
© All rights reserved © 2017 Onnodristy.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com