ব্রেকিং নিউজ
সংবাদকর্মী আবশ্যক। আগ্রহীগণ সিভি, ছবি এবং জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপিসহ আবেদন করুন - onnodristynews@gmail.com/ news@onnodristy.com. মুঠোফোন : ০১৯১১২২০৪৪০/ ০১৭১০২২০৪৪০।

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সময়সূচি বদলানো প্রয়োজন

তাসনীম চৌধুরী ।।

অনেক দিন ধরে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সময়সূচি নিয়ে আলোচনা হচ্ছে। বেশির ভাগ শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও অভিভাবক মনে করেন, দীর্ঘ সময় প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীর জন্য উপযোগী নয়। কারণ, দীর্ঘ সময় বিদ্যালয়ে থাকলে শিক্ষার্থীর ক্ষুধা পায়, শরীর দুর্বল হয়, পড়া মনে থাকে না। কর্তৃপক্ষ বলে, তাদের দুপুরের খাবার (মিড-ডে মিল) দেওয়া হোক। শিক্ষক বলেন, প্রাথমিক বিদ্যালয়ে অনেক বিবাহিত নারী শিক্ষক আছেন, তাঁদের সন্তান আছে। তাঁদের পক্ষে সংসার সামলিয়ে দীর্ঘ সময় ধরে বিদ্যালয়ে থাকা কঠিন হয়ে পড়ে। কর্তৃপক্ষ তাঁদের বলে, যাঁরা পারেন না, তাঁদের চাকরি করার প্রয়োজন নেই। কিছু শিক্ষক মনে করেন, শিশুকে জ্ঞানীগুণী বানাতে হলে শিক্ষকদের কর্মঘণ্টা আরও বাড়ানো উচিত। কিছু কর্মকর্তা মনে করেন, ফাঁকিবাজ শিক্ষকদের দৌড়ের ওপর রাখা উচিত। তাই বিদ্যালয়ের সময় বাড়ানোর বিকল্প নেই।

বর্তমানে প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রতিদিন ছয়টি আবশ্যকীয় বিষয় (বাংলা, ইংরেজি, গণিত, বাংলাদেশ ও বিশ্বপরিচয়, প্রাথমিক বিজ্ঞান, ধর্ম ও নৈতিক শিক্ষা) ছাড়াও সমাবেশ, কাব স্কাউট, শরীরচর্চা, সংগীত, চারুকারু শেখানো হয়। প্রতিদিন একটানা এসব বিষয় শিশুর জন্য বোঝাস্বরূপ। শরীরেও বোঝা বাড়ছে। কারণ, প্রতিটি শিশুকে ছয়টি বই, ছয়টি খাতা (ন্যূনতম ৪টি) পেনসিল বক্স, টিফিন বক্স, পানির বোতলসহ ভারী ব্যাগ পিঠে বয়ে নিতে হচ্ছে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, কোনো শিশু তার ওজনের ১০ ভাগের বেশি বস্তু বহন করলে তার হাঁটু, মেরুদণ্ড, ঘাড়, হৃৎপিণ্ড ক্ষতিগ্রস্ত হয়। দীর্ঘ সময় পেরিয়ে শিশু শিক্ষার্থীরা যখন ক্লান্ত-শ্রান্ত শরীর-মন নিয়ে ঘরে ফেরে, সেখানেও ওদের দুদণ্ড বিশ্রাম নেই। কেউ কোচিং, কেউ একাডেমি, কেউ নাচের স্কুলে দৌড়ায়। সন্ধ্যাবেলা অথবা সন্ধ্যার পরে ঘরে এসে আবার পড়া।

মনোবিজ্ঞানীরা বলেন, যেসব শিশু ছোটবেলায় বেশি চাপে থাকে, তারা বড় হয়ে বাস্তব পরিবেশ-পরিস্থিতির চাপ মানিয়ে নিতে সমস্যায় পড়ে। বিদ্যালয়ে বই–খাতার ভার আছে, শিক্ষকের শাসন আছে, কিন্তু খেলার মাঠ নেই। গ্রামাঞ্চলের দরিদ্র পরিবারের শিশুরা মা-বাবাকে বিভিন্ন কাজে সাহায্য করে থাকে। যেমন: কৃষিকাজ, বাজার করা, রান্নার কাজ, কুটিরশিল্প তৈরি, দোকানের হিসাব রাখা ইত্যাদি। দীর্ঘ সময় বিদ্যালয়ে থাকতে হলে তারা তাদের পরিবারকে এই সহযোগিতাটুকু করতে পারবে না। গরমের দিনগুলো বড় হওয়ায় প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে দুপুরবেলায় ভ্যাপসা গরমে শিশুদের খুব কষ্ট হয়। আবার শীতের সময় দিন ছোট থাকায় শিশুদের ঠান্ডা লাগে। স্কুল শেষে বাড়ি যেতে যেতে সন্ধ্যা হয়।

এবার শিক্ষকদের বিষয়ে কিছু বলি। শিক্ষকদের স্কুলে দীর্ঘ সময় কথা বলতে হয়। যদিও এখন শিখন শেখানো কার্যাবলি শিক্ষার্থীকেন্দ্রিক, তারপরও মূল কাজ এবং নির্দেশনা শিক্ষকদেরই করতে হয়। ফলে বেশি কথাও বলতে হয়। গবেষণায় দেখা গেছে, বিশ্বে কণ্ঠনালি ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে থাকেন বেশির ভাগ শিক্ষক। মায়ের মতো মমতা ও স্নেহ দিয়ে শিশু শিক্ষার্থীদের শিক্ষাদানে সহযোগিতা করেন নারী শিক্ষকেরা। দেখা যায় অন্য মায়েদের শিশুকে শিক্ষা দিতে গিয়ে শিক্ষক তাঁর নিজ সন্তানকে সময় দিতে পারেন না।

ফলে তারা বঞ্চিত হয় মা-বাবার কাছ থেকে খুব মূল্যবান সময়গুলো থেকে। এই বঞ্চনা শিশুদের মানসিক সমস্যার কারণ হয়। এর অনেক বাস্তব উদাহরণ আমাদের কাছে আছে। আমাদের দেশে যানজট এবং সড়ক দুর্ঘটনা একটি বড় সমস্যা। বিদ্যালয়ের সময় কমালে এ থেকেও কিছুটা নিষ্কৃতি পাওয়া যাবে।

তাহলে কেমন সময়সূচি আমাদের শিশু শিক্ষার্থী এবং শিক্ষকদের জন্য ভালো হবে? সকাল ১০টা থেকে বেলা ৩টা পর্যন্ত করা যায়। প্রাক্-প্রাথমিক শ্রেণি সকাল ১০টা থেকে ১১টা ৩০ মিনিট পর্যন্তই যথেষ্ট। যেসব বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীর সংখ্যা ১৫০–এর নিচে, ওই বিদ্যালয়গুলো এক শিফট এবং ১৫০–এর বেশি হলে দুই শিফট করা যেতে পারে। পঞ্চম শ্রেণির ক্লাস সব বিদ্যালয়ে ১১টা থেকে শুরু করা যায়। প্রতিদিন তারা বাংলা, ইংরেজি ও গণিত পড়বে। অন্য বিষয়গুলো দুই দিন করে পড়বে। বিরতি ৩০ মিনিট যথেষ্ট। বৃহস্পতিবার হাফ স্কুলের দরকার নেই।

আন্তরিকতা, সততা ও আনন্দের সঙ্গে পাঠদান করলে এই সময়ের মধ্যেই প্রাথমিক শিক্ষার্থীদের পাঠদানে সফল হওয়া সম্ভব। অন্যথায় সময় বাড়ালেও কাঙ্ক্ষিত ফল লাভ করা দুষ্কর হয়ে পড়বে।

 

অন্যদৃষ্টি / শামীম খাঁন

Facebook Comments


শিরোনাম
ইয়ুথ এন্টারটেইনমেন্ট এর ব্যানারে মুক্তি পেল মনির মুন্নার “নারী” শিক্ষকদের অতিরিক্ত ৪% কর্তন বন্ধে আজ বৃহস্পতিবার কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তর এর মহাপরিচালকের নিকট স্মারকলিপি প্রদাণ প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এক শিফট চালু করে স্কুল সময় কমিয়ে আনা হবে — গনশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী  রাবিতে কিশোরগঞ্জ জেলা ফোরামের নবীনবরণ ও বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত তিন দিনের কর্মসূচি ঘোষণা করেছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট রায়পুরে নৌকার সমর্থনে মানুষের ঢল রামগঞ্জে ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী রাকিবুল হাসান মাসুদের গনসংযোগ বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে বিএনপি’র বিক্ষোভ মিছিল  ইসলামের জন্য একসাথে কাজ করবার অঙ্গীকার করলেন, ইমরান – মহাথির মাগুরা শ্রীপুরে প্রচার-প্রচারনায় শেষ দিনে নিজেদের পছন্দের প্রতিকে ভোট চাইছেন প্রার্থীরা মাগুরা শ্রীপুরে আচরণ বিধি লঙ্ঘনের দায়ে মোটর সাইকেল শোভাযাত্রা পন্ড শার্শায় সাংবাদিক কল্যান সংস্থার মতবিনিময় সভা এক জন শিক্ষক হিসেবে জানুন… জাতীয়করণের দাবি যৌক্তিক, প্রধানমন্ত্রীকে যথাযথ প্রক্রিয়ায় জানাতে হবে: শিরীন আখতার এমপি নওগাঁয় ১ কোটি ১৪ লাখ টাকা ব্যয়ে সদর সহকারী পুলিশ সুপার কার্যালয়ের শুভ উদ্ধোধন এমপিওভুক্তির দাবিতে প্রখর রোদে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে নন এমপিও শিক্ষকরা অনাথ ভবঘুরে এতিম শিশুদের ইচ্ছা পুরণে ঝিনেদার আঞ্চলিক ভাষা গ্রুপের ব্যতিক্রমধর্মী অনুষ্ঠান স্বাধীনতার ৪৮ বছরেও নওগাঁর ১০ বীরাঙ্গনার ভাগ্যে মিলেনি রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি আমি আগেও আওয়ামী লীগে ছিলাম, এখনও আছি: সুলতান মনসুর পঞ্চম শ্রেণির বৃত্তির ফল আগামী রোববার (২৪ মার্চ)  নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রীকে হত্যার হুমকি   ঝিনাইদহ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অবাধ, নিরপেক্ষ ও শান্তিপুর্ন করার দাবিতে সাংবাদিক সম্মেলন  ঝিনাইদহে ইসলামিক ফাউন্ডেশনের ৪৪ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত  মাগুরা শ্রীপুরে প্রচার-প্রচারনায় শেষ দিনে নিজেদের পছন্দের প্রতিকে ভোট চাইছেন প্রার্থীরা শৈলকুপা থানার ওসিকে নির্বাচনী দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি
© All rights reserved © 2017 Onnodristy.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com