১৮ অগাস্ট ২০১৮ || শনিবার || ০৪:১২ অপরাহ্ন

বিদ্যুৎবিহীন হিমাগারের উদ্ভাবন : বাংলাদেশি চার তরুণের জাপান জয়

মাসুদ রানা, জবি।।

জাপানের সামাজিক উদ্যোক্তা অনুসন্ধান প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত র্পবে প্রথম হয়েছে কিউশু বিশ্ববদ্যিালয়ের একদল মেধাবী মুখ। বাংলাদেশি ছাত্রদের নিয়ে গড়ে তোলা এস-কিউব (S-cube) (Store, Smart-use & Save) নামের এ দলের মূল উপজীব্য বিষয় বাংলার প্রত্যন্ত অঞ্চলের কৃষকদের ফসল সংরক্ষণের জন্য বিদ্যুৎবিহীন হিমাগার সুবিধা প্রদান। হাল্ট প্রাইজ ফাউন্ডেশন আয়োজিত এ প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে জাপানের বিখ্যাত সব বিশ্ববদ্যিালয়ের বিজয়ী হয়ে আসা দলগুলো। অংশগ্রহণকারী ২৩টি দলের সবাইকে পেছনে ফেলে এই প্রতিযোগিতায় জয়ী এস-কিউব। দলটি জাপানের প্রতিনিধি হয়ে চলতি বছরের জুলাইয়ে লন্ডনে চূড়ান্ত প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করবে।

হাল্ট প্রাইজ ফাউন্ডেশন যুক্তরাষ্ট্র ভিত্তিক একটি অলাভজনক সংস্থা। যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট বিল ক্লিনটন এর র্কণধার। তরুণ সামাজিক উদ্যোক্তা অনুসন্ধানে কাজ করে এই ফাউন্ডেশন। বিশ্বব্যাপী বিশ্ববদ্যিালয়গুলোতে প্রতিযোগিতার মাধ্যমে সেরা তরুণ উদ্যোক্তা বাছাই করা হয়। চূড়ান্ত প্রতিযোগিতায় বিজয়ী দলকে পুরস্কার হিসেবে দেওয়া হয় ১০ লাখ মার্কিন ডলার। প্রতি বছর ভিন্ন ভিন্ন সমস্যা নিয়ে প্রতিযোগিতার বিষয় নির্ধারণ করা হয়ে থাকে। এ বছরের বিষয় ছিল- ১০ লাখ মার্কিন ডলার বিনিয়োগ করে প্রাকৃিতক/কৃত্রিম শক্তিকে কাজে লাগিয়ে ২০২৫ সালের মধ্যে এক কোটি মানুেষর জীবনধারা কিভাবে পরির্বতন করা সম্ভব?

বাংলাদেশের এ দলটি নিজের দেশের বিদ্যুৎ শক্তির অপ্রতুলতার কথা চিন্তা করে অনন্য এক অত্যাধুিনক প্রযুক্তির কথা উপস্থাপন করে। এ প্রযুক্তির মূল তত্ত্ব হচ্ছে বহু অনু বিষিষ্ট কঠিন পর্দাথের মধ্যে বাষ্পকে পরিশোষণ (adsorption of vapor onto porous solid))। এই তত্ত্ব প্রয়োগ করে এমন হিমাগার বানানো সম্ভব যা স্বল্প উষ্ণতার পরিত্যক্ত তাপ (যেমন ইটের ভাটা, বেকারি, রান্নার চুলার পরিত্যক্ত তাপ ইত্যাদি) অথবা সৌর শক্তি দ্বারা চালিত হবে। পাশাপাশি এ প্রযুক্তি কিভাবে বাংলাদেশে সামাজিক ব্যবসার মাধ্যমে বাস্তবায়ন করা সম্ভব তারও এক স্বয়ংসর্ম্পূণ পরিকল্পনা তারা তুলে ধরে।

উল্লেখ্য, দলের সব সদস্য র্বতমানে কিউশু বিশ্ববিদ্যালয়রে স্বনামধন্য বাংলাদেশি অধ্যাপক ড. বিদ্যুৎ বরণ সাহার তত্ত্বাবধানে পি এইচ ডি র্কোসে অধ্যয়নরত। চার সদস্যের দলটিতে রয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পাশ করা এম এল পলাশ, মো. আমরিুল ইসলাম, তাহমিদ হাসান রুপম এবং বুয়েটের মাহবুবুল মুত্তাকিন।

এ প্রযুক্তি প্রয়োগের ফলে বিদ্যুতের ব্যবহার ব্যাপক হারে হ্রাস করা সম্ভব। যা র্বতমান আওয়ামী লীগ সরকারের নেওয়া “রূপকল্প ২০২১” বাস্তবায়নে গুরুত্বর্পূণ অবদান রাখতে সক্ষম। এখানে উল্লেখ্য, হাল্ট প্রাইজ জাপানের বিচারকদের মতে এস-কিউব দলটির প্রযুক্তি অন্যান্য দলদের তুলনায় বেশ আধুনিক এবং বাস্তব সম্মত। প্রত্যন্ত অঞ্চলের মানুষের ভাগ্য উন্নয়নের জন্য এ প্রযুক্তি এখনই বাস্তবায়ন করার পক্ষে বিচারকরা।

 

Facebook Comments


© All rights reserved © 2017 Onnodristy.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com