ব্রেকিং নিউজ
সংবাদকর্মী আবশ্যক। আগ্রহীগণ সিভি, ছবি এবং জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপিসহ আবেদন করুন - onnodristynews@gmail.com/ news@onnodristy.com. মুঠোফোন : ০১৯১১২২০৪৪০/ ০১৭১০২২০৪৪০।

২৪ ডিসেম্বর মাঠে নামছে সেনাবাহিনী, থাকবে ভোটের পরেও দু’দিন

অন্যদৃষ্টি অনলাইন।।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে ও পরে সশস্ত্র  (সেনা, নৌ ও বিমান) বাহিনীর সদস্যরা মাঠে থাকবে। আগামী ২৪ ডিসেম্বর থেকে তাদের মাঠে নামার কথা রয়েছে। ভোটের পরেও তারা দুইদিন মাঠে অবস্থান করবেন।

বৃহস্পতিবার (১৩ ডিসেম্বর) আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সঙ্গে কমিশনের বৈঠকে এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হবে বলে জানা গেছে।

ইসি সূত্র জানিয়েছে, আগামী ২৪ থেকে ২৬ ডিসেম্বরের মধ্যে যেকোনোদিন মাঠে নামবে সেনাবাহিনী। তবে এর আগে ১৫ ডিসেম্বর থেকে পরিস্থিতি অবলোকন (রেকি) করবেন তারা। সেনাবাহিনীর প্রতিটি টিমের সঙ্গে একজন করে ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ করা হবে। ইতোমধ্যে এ সংক্রান্ত নির্দেশনা সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের পাঠানো হয়েছে।

এ বিষয়ে নির্বাচন কমিশনের যুগ্ম সচিব  (নির্বাচন পরিচালনা -২) ফরহাদ আহম্মদ খান বলেন, আগামিকাল আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর বৈঠকে সেনাবাহিনীসহ অন্যান্য বাহিনী কতদিন মাঠে অবস্থান করবেন সে বিষযে সিদ্ধান্ত হবে। ইতোমধ্যে বাহিনীগুলোর সঙ্গে বেশ কিছু বৈঠক হয়েছে। কাল সে বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হবে। সেনাবাহিনী মোতায়েনের বিষয়ে ইতোমধ্যে সিদ্ধান্ত হয়েছে। তারা কতদিন মাঠে অবস্থান করবেন সে বিষয়টিও কাল চূড়ান্ত হবে।

এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগের বিষয়ে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়কে দেয়া এক চিঠিতে বলা হয়েছে, ৩০ ডিসেম্বর একাদশ সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। মোবাইল কোর্ট আইন, ২০০৯ এর আওতায় আচরণবিধি প্রতিপালন নিশ্চিত করার লক্ষ্যে সূত্রে উল্লেখিত (১) এর নির্দেশনা অনুসারে সূত্রেল্লেখিত (২) এর মাধ্যমে সারাদেশে এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ করা হয়েছে। আচরণবিধি প্রতিপালন নিশ্চিতকরণে পাশাপাশি নির্বাচনী এলাকার সার্বিক শান্তি শৃঙ্খলা রক্ষা, অপরাধ প্রতিরোধের জন্য ভোটগ্রহণের দুইদিন পূর্ব থেকে ভোটগ্রহণের দুইদিন পর পর্যন্ত অর্থাৎ ২৮ ডিসেম্বর ২০১৮ থেকে ৩১ ডিসেম্বর ২০১৮ পর্যন্ত এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ করা প্রয়োজন। সেই সাথে ২৪-২৬ ডিসেম্বর ২০১৮ হতে ১ জানুয়ারি ২০১৯ পর্যন্ত মোতায়েনকৃত স্বশস্ত্র বাহিনী, বিজিবি, কোস্টগার্ড, ব্যাটলিয়ান আনসারের মোবাইল/ স্ট্রাইকিং ফোর্সের সঙ্গে একজন করে এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগের প্রয়োজন হবে।

চিঠিতে আরও বলা হয়, নির্বাচনী এলাকা ভিত্তিক এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্র‌ের সংখ্যা সংখ্যা বিভাগীয় কমিশনারের মাধ্যমে নিশ্চিত হয়ে পরবর্তীতে জানানো হবে।  উল্লিখিত এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্র‌েট নিয়োগের বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য নির্দেশক্রমে অনুরোধ করা হলো।

জানা গেছে, এবারও ইন এইড টু সিভিল পাওয়ার এর আওতায় সেনাবাহিনী মোতায়েন করা হবে। তারা স্ট্রাইকিং ফোর্স হিসেবে কাজ করবেন। এর আগে ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি নির্বাচনেও তাদেরকে একইভাবে মোতায়েন করেছিল ইসি। যদিও ২০০৮ সালে নিয়মিত আইনশৃঙ্খলা বাহিনী হিসেবে সেনা মোতায়েন করা হয়েছিল। ওই সময়ে গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ, ১৯৭২ (আরপিও) তে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সংজ্ঞায় সশস্ত্র বাহিনী অন্তর্ভূক্ত ছিল। পরে তা বাতিল করা হয়।

দশম সংসদ নির্বাচনে সেনাবাহিনী ২০১৩ সালের ২৬ ডিসেম্বর থেকে ৯ জানুয়ারি পর্যন্ত মোট ১৫ দিন মাঠে ছিল। তারা সাধারণ এলাকায় একজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও মেট্রোপলিটন এলাকায় কমিশনারের অধীনে দায়িত্ব পালন করেন। ফৌজদারি বিধির আলোকে মোতায়েন করা সেনাবাহিনী ২০১৪ সালের নির্বাচনে মূলত স্ট্রাইকিং বা রিজার্ভ ফোর্স হিসেবে দায়িত্ব পালন করে। ওই নির্বাচনে সারা দেশে প্রায় ৫০ হাজার সেনা সদস্য দায়িত্ব পালন করে। এক্ষেত্রে প্রতিটি জেলা একটি ব্যাটালিয়ন (৭৪০ সদস্য) ও প্রতিটি উপজেলায় এক প্লাটুন (৩৫ জন) সেনা সদস্য দায়িত্ব পালন করে।

Facebook Comments


শিরোনাম
শার্শায় ঘাতক চালককে আটক ও নিরাপদ সড়কের দাবিতে সড়ক অবরোধে ছাত্র-ছাত্রীরা ঝিনাইদহের শহীদ নুর আলী কলেজে ২৫ মার্চের গনহত্যার স্মৃতিচারণ ও ছাত্র/ছাত্রীদের জন্য দোয়া অনু্ষ্ঠান আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় গেলে শিক্ষকদের আর রাজপথে আন্দোলনে নামতে হবে না: শেখ হাসিনা চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ায় বিশ্বমানের হেল্থ সিটি প্রকল্পের পরিদর্শন করেন আমিরাত রাষ্ট্রদূত মাহিরী ২৬শেমার্চ উপলক্ষে ঝিনাইদহ জেলা বি এনপির প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত নওগাঁয় জেলা পুলিশের বার্ষিক পুলিশ সমাবেশ ও ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত ডাঃ শাহাদাত হোসেনের সাথে রাংগুনিয়া উপজেলা বিএনপির নেতৃবৃন্দের সৌজন্য সাক্ষাৎ প্রাথমিক শিক্ষাকে ঢেলে সাজানো ও শিক্ষকদের বেতন বৈষম্য দূর হবে: গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী রাঙ্গামাটির লংগদু উপজেলার শ্রেষ্ঠ শিক্ষক মোঃ আবুল হাসেম দশটা টাহা দে কিছু খাইমু: খালু পাগলা স্বর্ণ পাচারকারীকে নয়, স্বর্ণ পদক প্রাপ্তকে ভোট দিন: আতাউর রহমান আতা বেপরোয়া থেকে বেপরোয়া হচ্ছে রোহিঙ্গারা মানসম্মত শিক্ষায় শিক্ষকদের ভূমিকাই মুখ্য: ড. দীপু মনি প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মুজিবনগর দিবস উদযাপনের নির্দেশ এরিত্রিয়ায় ন্যূনতম দু’টি বিয়ে করতেই হবে, না হলে জেল! ইয়ুথ এন্টারটেইনমেন্ট এর ব্যানারে মুক্তি পেল মনির মুন্নার “নারী” শিক্ষকদের অতিরিক্ত ৪% কর্তন বন্ধে আজ বৃহস্পতিবার কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তর এর মহাপরিচালকের নিকট স্মারকলিপি প্রদাণ প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এক শিফট চালু করে স্কুল সময় কমিয়ে আনা হবে — গনশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী  রাবিতে কিশোরগঞ্জ জেলা ফোরামের নবীনবরণ ও বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত তিন দিনের কর্মসূচি ঘোষণা করেছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট রায়পুরে নৌকার সমর্থনে মানুষের ঢল রামগঞ্জে ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী রাকিবুল হাসান মাসুদের গনসংযোগ বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে বিএনপি’র বিক্ষোভ মিছিল  ইসলামের জন্য একসাথে কাজ করবার অঙ্গীকার করলেন, ইমরান – মহাথির মাগুরা শ্রীপুরে প্রচার-প্রচারনায় শেষ দিনে নিজেদের পছন্দের প্রতিকে ভোট চাইছেন প্রার্থীরা
© All rights reserved © 2017 Onnodristy.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com