নোটিশ :
সংবাদকর্মী নিচ্ছে অন্যদৃষ্টি। আগ্রহীগন সিভি পাঠান- 0nnodrisrtynews@gmail.com
০২ ডিসেম্বর ২০২০, ১২:০২ অপরাহ্ন

এসকেটেকে হাল্ট ইনফো সেশন অনুষ্ঠিত

স্টাফ রিপোর্টার।।
শনিবার, ৭ নভেম্বর, ২০২০, ২:২৪ অপরাহ্ন

হাল্ট প্রাইজ’ এমন একটি ‘আইডিয়া কম্পিটিশন’ যেখানে মূলত তরুণেরা তাদের মেধা-মনন ব্যবহার করে একটি অদ্বিতীয় ব্যাবসায়িক পরিকল্পনা প্রদানের মাধ্যমে বর্তমান বিশ্বের যে কোন সামাজিক, অর্থনৈতিক ও পরিবেশ সংক্রান্ত অন্তরায় থেকে পরিত্রাণ পেতে সাহায্য করে থাকে। প্রতি বছর পৃথিবীজুড়ে প্রায় ১০০০ এর বেশি বিশ্ববিদ্যালয়ে এই প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়ে থাকে। বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায় থেকে বিজয়ী দলকে তারপর আঞ্চলিক বাছাই প্রক্রিয়ায় পাঠানো হয়। চূড়ান্ত প্রতিযোগিতায় বিজয়ী দলকে ১০ লক্ষ মার্কিন ডলার প্রাইজ মানি হিসেবে উপহার দেওয়া হয়৷

কিন্তু কিছু বিষয়ে সন্দিহান থাকার দরুন অনেকেই এই হাল্ট নিয়ে আগ্রহ দেখায় না। এই সন্দিহানতা দূর করার জন্যই শেখ কামাল টেক্সটাইল ইন্জিনিয়ারিং কলেজের হাল্ট প্রাইজ কমিটি গত  ৬ নভেম্বর  ২০২০, রাত ৮ : ৩০ ঘটিকায় “হাল্ট ইনফো সেশন” নামক একটি অনলাইন কর্মশালার আয়োজন করে,যেখানে সঞ্চালক হিসাবে ছিলেন  ক্যাম্পাস ডিরেক্টর মো. মোক্তার হোসেন  এবং অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন  নেপাল থেকে আগত  পারসূনা ভান্ডারি,হাল্ট প্রাইজ আউটরিচ কোঅরডিনেটর,হাল্ট প্রাইজ,ত্রিভূবন ইউনিভার্সিটি,নেপাল।

প্রায় এক ঘন্টার মতো এই কর্মশালাটিতে পারসূনা ভান্ডারি, তিনি তার  নানা অভিজ্ঞতা ও হাল্ট প্রাইজ  নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ কথা বলেন।  প্রয়োজনীয়তা,কেন হাল্ট প্রাইজে জয়েন হতে হবে, বাধা-বিপত্তির কথা তুলে ধরেন।
কর্মশালাটি যেহেতু অনলাইনে লাইভ ছিল,এজন্য তিনি অনেকের প্রশ্নের তৎক্ষনাৎ উত্তর দিয়েছেন,হাল্ট প্রাইজ কি,  কিভাবে কাজ করতে হবে,ছাত্র জীবনে এর প্রভাব নিয়েও কথা বলেছেন তিনি। সবমিলিয়ে এই সেশনটি ছিল অন্যরকম।

ক্যাম্পাস ডিরেক্টর মো. মোক্তার হোসেন বলেন “অন্য সকল ইনফো সেশনের থেকে এটা ছিল আলাদা কারন স্পিকার ছিল বাইরের দেশের,নতুন কিছু সম্ভাবনা ও হাল্ট প্রাইজের সকল সম্ভাবনা উঠে এসেছে এই সেশনে। তিনি আরও বলেন এই সেশনের মাধ্যমে আমরা নতুন কিছু শিখেছি,ও জেনেছি। ধন্যবাদ সকল অরগানাইজার টিমকে এবং স্পেশালভাবে পারসূনা ভান্ডারিকে আমাদের সাথে যুক্ত হওয়ার জন্য।

Facebook Comments
Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো সংবাদ