নোটিশ :
সংবাদকর্মী নিচ্ছে অন্যদৃষ্টি। আগ্রহীগন সিভি পাঠান- 0nnodrisrtynews@gmail.com
০১ অক্টোবর ২০২০, ০৭:৩১ অপরাহ্ন

ভর্তি পরীক্ষাকে ঘিরে রাবি প্রশাসনের প্রস্তুতি

অন্যদৃষ্টি ডেস্ক
বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর, ২০১৯, ৯:২৬ অপরাহ্ন

আশিক ইসলাম, রাবি:
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক প্রথম বর্ষ ভর্তি পরীক্ষা শুরু হতে আর মাত্র বাকি দুইদিন। সুষ্ঠুভাবে ভর্তি পরীক্ষা সম্পন্ন করতে নানা কর্মসূচি হাতে নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। আগামীকাল শুক্রবারের (১৮ অক্টোবর) মধ্যে সকল ধরনের প্রস্তুতি শেষ হবে বলে জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক লুৎফর রহমান।

প্রক্টর দফতর সূত্রে জানা যায়, ভর্তি পরীক্ষা উপলক্ষে এবার ক্যাম্পাস জুড়ে হাতে নেয়া হয়েছে বিভিন্ন ধরনের পদক্ষেপ। পরীক্ষার্থীদের সার্বিক সহাযোগীতার জন্য ক্যাম্পাসের গুরুত্বপূর্ণ ৮ টি স্থানে হেল্পডেস্ক স্থাপন করা হবে। সহকারী প্রক্টরগণ এসব হেল্পডেস্কে উপস্থিত থেকে পরীক্ষার্থীদেরকে সহায়তা করবেন। এছাড়া স্কাউট, বিএনসিসি সদস্যরা সহায়তার জন্য অবস্থান করা হয়েছে। তবে ক্যাম্পাসে কোন জেলা সমিতি বা সংগঠন কেউ কোন ধরনের বুথ, স্টল কিংবা ডেস্ক স্থাপন করতে পারবে না।
সঠিক মূল্যে খাদ্যসেবা নিশ্চিত করতে ক্যাম্পাসের রেস্টুরেন্ট মালিকদেরকে খাদ্যমূল্য তালিকা জমা দেয়ার জন্য নির্দেশ দিয়েছে প্রক্টর দফতর। এছাড়া, ২০ অক্টোবর দুপুর ২ টা থেকে ২২ অক্টোবর বিকাল ৪টা পর্যন্ত ক্যাম্পাসে সকল কম্পিউটার ও ফটোকপির দোকান বন্ধ রাখার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

এদিকে, পরীক্ষার্থীদের যাতায়াতের সুবিধার্থে ক্যাম্পাসের বাসের সময়সূচিতে পরিবর্তন এনেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবহন দফতর। ভর্তি পরীক্ষা চলাকালীন দুইদিন বাসগুলো সকাল ৭টা, ৮টা, দুপুর ১টা ৫০ ও বিকেল ৫টা ২০ মিনিট এ ক্যাম্পাস থেকে ছেড়ে যাবে। গন্তব্যস্থল থেকে আধঘন্টা পরপর ক্যাম্পাসে ফিরবে বাসগুলো।

ভর্তিচ্ছুদের অভিভাবকদের থাকার জন্য প্রথমবারের মতো ব্যবস্থা নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। বিশ্ববিদ্যালয়ের পশ্চিম পাশে অবস্থিত নারীদের ব্যায়ামাগারে নারী অভিভাবকরা পরীক্ষা চলাকালীন দুইদিন থাকতে পারবেন। এছাড়া, বিশ্ববিদ্যালয়ের আশপাশের মেসগুলোতে পরীক্ষার্থীরা দুইদিন বিনা ভাড়ায় অবস্থান করতে পারবেন বলে প্রক্টর দফতর থেকে জানা গেছে।

এ বিষয়ে প্রক্টর অধ্যাপক লুৎফর রহমান বলেন, দূর থেকে আসা ভর্তি পরীক্ষার্থীরা বিশ্ববিদ্যালয়ের হলে ও বাইরে মেসে অবস্থান করে। মেস মালিকদের সাথে কথা বলে আমরা ভাড়া না নিয়ে পরীক্ষার্থীদের থাকতে দেয়ার জন্য বলেছি। তারা আমাদেরকে ইতিবাচক আশ্বাস দিয়েছেন। এছাড়া মেস মালিক সমিতির পক্ষ থেকে পরীক্ষার্থীদের সুবিধার্থে বিনোদপুর বিসমিল্লাহ টাওয়ারে একটি হেল্পডেস্ক থাকবে।

পরীক্ষার্থীদের নিরাপত্তায় কী ধরণের পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে জানতে চাইলে প্রক্টর লুৎফর রহমান বলেন, গতবারের তুলনায় এবার নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরো জোরদার করা হয়েছে। ভর্তি পরীক্ষার সময় পরীক্ষার্থীদের অসহায়ত্বকে পুঁজি করে কখনো কখনো অনাকাঙ্খিত ঘটনা ঘটে। তাই আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা গুরুত্বের সাথে এ বিষয়টি দেখাশোনা করবেন। আশা করছি, কোন অনাকাঙ্খিত ঘটনা ঘটবে না। এজন্য সবার সার্বিক সহযোগিতা প্রয়োজন। সবাইকে সহযোগিতার জন্য আহ্বান জানান তিনি।

 

অন্যদৃষ্টি/ আশিক

Facebook Comments
Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো সংবাদ